আফ্রিকা থেকে কেউ দেশে এলে বোর্ডিং পাস দেওয়া হবে না : পররাষ্ট্রমন্ত্রী

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, ‘ওমিক্রন মোকাবিলায় আমাদের সর্বোচ্চভাবে প্রস্তুত থাকতে হবে। আফ্রিকায় ইতোমধ্যে ভাইরাসটি ছড়িয়ে পড়েছে। আফ্রিকায় আমাদের বিমান যায় না।

তবে অন্য কোনো এয়ারলাইন্সে করে সে দেশ থেকে আমাদের দেশে কেউ এলে তাদের বোর্ডিং পাস দেওয়া হবে না। আর বোর্ডিং পাস দিলেও যাদের ডাবল ভ্যাকসিন আছে এবং টেস্ট রিপোর্ট নেগেটিভ তাদের ১৪ দিন প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে।

আজ বৃহ্স্পতিবার বিকালে সিলেট সদর উপজেলার ছালিয়া এলাকায় কমিউনিটি এগেইনস্ট পভারটির (ক্যাপ) আর্থসামাজিক প্রকল্প ‘দ্যা গার্ডিয়ান অ্যান্ড অর্ফান ভিলেজ’র উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এ কথা বলেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আফ্রিকার আশপাশের দেশগুলোতে যারা আছেন তাদের ডিসকারেজ করার জন্য অথবা এখন দেশে না এসে পরে আসার জন্য সবগুলো মিশনকে বলে দেওয়া হয়েছে। তবে বাংলাদেশ প্রস্তুত, এটা সমস্যা হবে না আশা করি।’

এসময় তিনি আরও বলেন, ‘ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর প্রধান অতিথি হিসেবে যোগদানের বিষয়টি এখনো নিশ্চিত নয়। আগামী ১০ ডিসেম্বর ভারতীয় সচিব বার্তা নিয়ে আসার পর সে বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া যাবে।’

উল্লেখ্য, প্রবাসীদের অর্থায়নে ৫ কোটি টাকা ব্যয়ে সিলেটে ১০০ আশ্রয়হীন শিশুর জন্য গড়ে তোলা হচ্ছে ‘দ্যা গার্ডিয়ান অ্যান্ড অর্ফান ভিলেজ’। বৃহস্পতিবার সেই প্রকল্পটি উদ্বোধন ও পরিদর্শন করতে আসেন ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সিলেট সিটি করপোরেশেনের (সিসকি) মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী, আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, চ্যানেল এস-এর চেয়ারম্যান আহমেদ উস সামাদ চৌধুরী, সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাউন্সিলর আজাদুর রহমান আজাদ, ক্যাপ ফাউন্ডেশনের সিইও মো.আব্দুল নূর, সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, ট্রেজারার আলম হাসান রউফ ও অ্যাম্বাসেডর নাজ চৌধুরী।

 64 total views,  1 views today

প্রকাশিত সংবাদ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি,পাঠকের মতামত বিভাগে প্রচারিত মতামত একান্তই পাঠকের, তার জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়।
Top