বাংলাদেশে এসে আমি খুবই খুশি: ভারতের রাষ্ট্রপতি

অনলাইন ডেস্ক: প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে সফরে এসে খুবই খুশি বলে জানিয়েছেন ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। দুই দেশের মধ্যে যে ব্যাপক ও প্রাণবন্ত সম্পর্ক রয়েছে তা আরও জোরদার হবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন ভারতীয় রাষ্ট্রপতি।

বুধবার বিকালে হোটেল প্যান প্যাসিফিক সোনারগাঁওয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে গেলে রামনাথ কোবিন্দ এসব কথা বলেন।

বিকাল চারটার দিকে প্রধানমন্ত্রী হোটেল সোনারগাঁওয়ে আসেন। সাক্ষাৎ শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের এ ব্যাপারে ব্রিফ করেন।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব জানান, ভারতের রাষ্ট্রপতি ভারত-বাংলাদেশ সম্পর্ককে ব্যাপক এবং প্রাণবন্ত বলে বর্ণনা করেন। তিনি বলেন, আমরা যোগাযোগের ওপর জোর দিচ্ছি।

ভারতের রাষ্ট্রপতি বলেন, ভারতের উন্নয়ন অংশীদার বাংলাদেশ। ভারত-বাংলাদেশের মধ্যে অংশীদারিত্ব ব্যাপক এবং প্রাণবন্ত।

বাংলাদেশের তিনটি উদযাপনের অংশ নিতে পেরে তিনি খুবই খুশি বলে জানান রামনাথ কোবিন্দ।

ভারতীয় রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘বাংলাদেশ যখন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী, বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী ও দেশ দুটির মধ্যে কূটনৈতিক সম্পর্কের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন করছে, এমন একটি সময়ে আমি এই অনুষ্ঠানগুলোতে উপস্থিত থাকতে পেরে খুবই আনন্দিত।’

‘বাংলাদেশ কাউকে সংখ্যালঘু হিসেবে দেখে না’

এদিকে রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বাংলাদেশ কাউকে সংখ্যালঘু হিসেবে দেখে না, এখানে সব নাগরিকের সমান অধিকার। এই অঞ্চলে স্থিতিশীলতার জন্য বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে সুসম্পর্ক জরুরি।

সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফিংকালে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম এই কথা জানান।

শাহরিয়ার বলেন, ‘দুর্গাপুজার পর যে সমস্যা হয়েছিল, প্রধানমন্ত্রী বলেছেন যে, আমাদের দেশে সংখ্যালঘু হিসেবে কাউকে ট্রিট করা হয় না। সবার সমান অধিকার দেওয়া হয়।’

অমীমাংসিত বিষয়ে আলোচনা হয়েছে কি না এমন প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘পররাষ্ট্রমন্ত্রীও তার বৈঠকে বলেছেন যে, আমরা অনেক সমস্যার সমাধান করেছি। বাকি যেগুলো আছে, মোটা দাগে সবগুলোকে এক জায়গায় নিয়ে এসে উনি বলেছেন, আমরা আলোচনার মধ্য দিয়ে এগুলি সমাধান করতে পারব।’

এর আগে বিজয়ের সুবর্ণজয়ন্তী ও জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকীর আয়োজনে যোগ দিতে সকালে তিন দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে ঢাকায় আসেন ভারতের রাষ্ট্রপতি। বিমানবন্দরে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ তাকে স্বাগত জানান। সেখানে ভারতের রাষ্ট্রপতিকে গার্ড অব অনার দেওয়া হয়।

রামনাথ কোবিন্দ সাভারের জাতীয় স্মৃতিসৌধে মহান মুক্তিযুদ্ধে আত্মদানকারী শহীদদের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানান। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে স্মৃতিসৌধ প্রাঙ্গণে একটি গাছের চারা রোপণ করেন। সই করেন স্মৃতিসৌধের পরিদর্শন বইয়ে। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন সহধর্মিণী সবিতা কোবিন্দ ও কন্যা স্বাতি কোবিন্দ।

 38 total views,  1 views today

প্রকাশিত সংবাদ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি,পাঠকের মতামত বিভাগে প্রচারিত মতামত একান্তই পাঠকের, তার জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়।
Top