তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার করে জনগণকে ১১১ সেবা দিচ্ছে সরকার

অনলাইন ডেস্ক: জাতীয় সংসদের হুইপ ও দিনাজপুর-৩ আসনের সংসদ সদস্য ইকবালুর রহিম বলেছেন, তথ্য প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে জনগণকে ১১১ রকমের সেবা দিচ্ছে সরকার।

তিনি বলেন, বর্তমানে টাকা দিয়ে ও তদবিরে ভর্তি হয় না। মেধা ও যোগ্যতায় প্রতিযোগিতা করে ভর্তি হতে হয়। অনলাইনে ভর্তি হতে হয়। আর এটাই হলো শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন ছিল বাঙালি জাতিকে শিক্ষা-সংস্কৃতি, আর্থ-সামাজিক ও উন্নয়নে স্বাবলম্বী করা। বঙ্গবন্ধুর লালিত স্বপ্ন বাস্তবায়ন করে জনগনের মুখে হাসি ফোটানো এবং জনগণের সুখ শান্তি ফিরিয়ে এনে জাতিকে একটি উন্নত জাতি হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে চায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। 

শুক্রবার দিনাজপুর হলি ল্যান্ড কলেজ আয়োজিত নবীনবরণ-২০২২ অনুষ্ঠানের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে জাতীয় সংসদের হুইপ ইকবালুর রহিম এসব কথা বলেন।

ইকবালুর রহিম বলেন, আজকের প্রজন্ম আগামীদিন রাষ্ট্র পরিচালনার দায়িত্ব নিবে। দেশ পরিচালনার প্রধান শক্তি হলো শিক্ষা। এই শিক্ষাকে তরান্বিত করে উন্নয়নের দারপ্রান্তে পৌঁছাতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের এ প্রান্ত থেকে ও প্রান্ত ছুটে বেড়াচ্ছেন। শিক্ষা ছাড়া দেশের উন্নয়ন সম্ভব নয়। এই চিন্তা চেতনাকে ধারন করেই শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পর থেকে শিক্ষাকে গুরুত্ব দিয়েছেন। দেশের তৃণমুল পর্যায়ে শিক্ষার প্রতিভা আজ ঘরে ঘরে। তথ্য প্রযুক্তির এ যুগে দিনাজপুর হলি ল্যান্ড কলেজ যে দায়িত্ব নিয়ে শিক্ষার আলোয় আলোকিত করছে শিক্ষার্থীদের। তা আজ দেশ ব্যাপী প্রশংসিত। দিনাজপুর শিক্ষার নগরীতে পরিণত হয়েছে।

তিনি বলেন, নিরক্ষরতার অভিশাপ থেকে জাতিকে মুক্ত করার জন্য শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আসার পর থেকেই শিক্ষার উপর জোর দিয়েছেন। বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় এগিয়ে যাচ্ছে। শিক্ষা, বিদ্যুৎ, স্বাস্থ্য, যোগাযোগ ব্যবস্থা, মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনসহ সকল ক্ষেত্রেই দেশ আজ আলোকিত। উন্নয়নের কারিগরই হলো শেখ হাসিনা। শেখ হাসিনার যোগ্যতা, নিষ্ঠা, মেধা-মনন, দক্ষতায় বাংলাদেশ আজ স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উন্নয়নশীল রাষ্ট্রে উন্নীত হয়েছে। তাকে বলা হয় বাংলাদেশের বিস্ময়কর উত্থানের একমাত্র কারিগর।

তিনি আরও বলেন, শুধু উন্নয়নই নয় বঙ্গবন্ধু কন্যার নেতৃত্বে বাংলার দুঃখী মানুষের জীবনমান আমূল বদলে গেছে। 

দিনাজপুর হলি ল্যান্ড কলেজের চেয়ারম্যান প্রফেসর আব্দুর রউফের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন সৈয়দপুর সরকারি বিজ্ঞান কলেজের অধ্যক্ষ গোলাম আহমেদ ফারুক, দিনাজপুর কোতয়ালী অফিসার ইনচার্জ মোজাফফর হোসেন, হলি ল্যান্ড স্কুলের সভাপতি সৈয়দ সায়েম আহমেদ মিঠু, হলি ল্যান্ড কলেজের পরিচালক একেএম মাহফুজুল ইসলাম বিজয়, অধ্যক্ষ জাহাঙ্গীর আলম, শিক্ষক পাভেল রায়হান।

 472 total views,  6 views today

প্রকাশিত সংবাদ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি,পাঠকের মতামত বিভাগে প্রচারিত মতামত একান্তই পাঠকের, তার জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়।
Top