শুঁড় দিয়ে তুলে নারীকে আছড়ে মারল হাতি

চট্টগ্রামের আনোয়ারা উপজেলার উত্তর গুয়াপঞ্চক গ্রামে গতকাল রোববার রাতে হাতির আক্রমণে এক গৃহবধূ নিহত হয়েছেন। তাঁর নাম দেবী রানী দে (৪৫)। তিনি পল্লি চিকিৎসক অরুণ কান্তি দের স্ত্রী।

নিহত দেবী রানীর পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গতকাল রাত ১২টার দিকে দুটি হাতি কেইপিজেডের পাহাড় থেকে নেমে উত্তর গুয়াপঞ্চক গ্রামে যায়। হাতি দুটি পাহাড় থেকে নেমেই ফসলের খেত ও গাছপালা নষ্ট করে। ওই সময় লোকজন ভয়ে এদিক-সেদিক ছুটতে থাকেন। এ সময় ঘর থেকে ভয়ে বের হলে হাতির সামনে পড়েন দেবী রানী দে। একটি হাতি তাঁকে শুঁড় দিয়ে তুলে আছাড়ে মেরে ফেলেন।

স্থানীয় সূত্র জানায়, গত দেড় বছর ধরে কাছের দেয়াঙ পাহাড়ে অবস্থান নিয়েছে তিনটি হাতি। এগুলো প্রায়ই খাবারের খোঁজে লোকালয়ে নেমে আসে এবং ফসলের খেত নষ্ট করে। এসব হাতির আক্রমণে গত দেড় বছরে আনোয়ারা উপজেলার বিভিন্ন এলাকার ছয়জন নিহত হয়েছেন।

নিহতের মেয়ে পিংকি দে ও ছেলে ঈশান দে বলেন, ‘হাতি এলে আমরা ঘর থেকে ভয়ে বের হই। ওই সময় হাতির সামনে পড়েন মা। সঙ্গে সঙ্গে মাকে তুলে আছাড় মেরে পা দিয়ে চাপ দেয় হাতি। মা তখনই মারা যান।’

 262 total views,  1 views today

প্রকাশিত সংবাদ বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি,পাঠকের মতামত বিভাগে প্রচারিত মতামত একান্তই পাঠকের, তার জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়।
Top